1. zobairahmed461@gmail.com : Zobair : Zobair Ahammad
  2. adrienne.edmonds@banknews.online : adrienneedmonds :
  3. annette.farber@ukbanksnews.club : annettefarber :
  4. camelliaubq5zu@mail.com : arnider :
  5. patsymillington@hidebox.org : bennystenhouse :
  6. steeseejep2235@inbox.ru : bobbye34t0314102 :
  7. nikitakars7j@myrambler.ru : carljac :
  8. celina_marchant44@ukbanksnews.club : celinamarchant5 :
  9. sk.sehd.gn.l7@gmail.com : charitygrattan :
  10. clarencecremor@mvn.warboardplace.com : clarencef96 :
  11. chebotarenko.2022@mail.ru : dorastrode5 :
  12. lawanasummerall120@yahoo.com : eltonvonstieglit :
  13. tonsomotoconni401@yahoo.com : fmajeff171888 :
  14. gennieleija62@awer.blastzane.com : gennieleija6 :
  15. judileta@partcafe.com : gildastirling98 :
  16. katharinafaithfull9919@hidebox.org : isabellhollins :
  17. padsveva3337@bk.ru : janidqm31288238 :
  18. michaovdm8@mail.com : latmar :
  19. mahmudCBF@gmail.com : Mahmudul Hasan : Mahmudul Hasan
  20. marti_vaughan@banknews.live : martivaughan6 :
  21. crawkewanombtradven749@yahoo.com : marvinv379457 :
  22. deirexerivesubt571@yahoo.com : meridithlefebvre :
  23. lecatalitocktec961@yahoo.com : normanposey6 :
  24. guscervantes@hidebox.org : ophelia62h :
  25. margarite@i.shavers.skin : pilargouin7 :
  26. gracielafitzgibbon5270@hidebox.org : princelithgow52 :
  27. randi-blythe78@mobile-ru.info : randiblythe :
  28. berrygaffney@hidebox.org : rose25e8563833 :
  29. incolanona1190@mail.ru : sibyl83l32 :
  30. pennylcdgh@mail.com : siribret :
  31. ulkahsamewheel@beach-drontistmeda.sa.com : ulkahsamewheel :
  32. harmony@bestdrones.store : velmap38871998 :
  33. karleengjkla@mail.com : weibad :
  34. dhhbew0zt@esiix.com : wpuser_nugeaqouzxup :
লেয়লা তারাবলুসি: জেসমিন বিপ্লবের ক্যাকটাস
বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:১৩ অপরাহ্ন

লেয়লা তারাবলুসি: জেসমিন বিপ্লবের ক্যাকটাস

রাকিবুল হাসান
  • আপডেট সময় : রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৫৪৫ বার পড়া হয়েছে
Leila-Tarabalusi-Arab-Spring-Rebellion-from-Revolution

মুহাম্মদ আবু আবদিল আলি, তিউনিসিয়ান উচ্চারণে মুহাম্মদ বুয়াবদেললি। বসে আছেন তিউনিসিয়ার তৎকালীন প্রেসিডেন্ট যাইনুল আবেদিন বেন আলির সামনে। আবদেললি একজন প্রকৌশলি, রাজনীতিবিদ এবং শিক্ষাবিদ। তার স্কুল গোটা দেশে নাম করেছে। কলেজ-ভার্সিটিও ভাল চলছে।

: মি. প্রেসিডেন্ট, নানাদিক থেকে, নানা মহল থেকে ফার্মাকোলোজি কলেজ খোলার তাগাদা আসছে।

: ফিফটি-ফিফটি!

মনে মনে ভাবছিলাম আমি সামান্য একজন শিক্ষক, মি. প্রেসিডেন্ট। মিলিওনিয়ার বিজনেস টাইকুন না। পাশাপাশি এও ভাবছিলাম একটা দেশের প্রেসিডেন্ট যদি এত নিকৃষ্ট হয়, সে যে এখনো গোটা দেশ বেচে দিচ্ছে না, সেটাই বিস্ময়।

দুইবছর পর বেন আলির সাথে আবার বুয়াবদেললির খিটিমিটি বাঁধে। আবদেললির শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়াশোনা করা বেন আলির ‘দ্য ফ্যামিলি’র এক মেয়ে পরীক্ষায় ফেল করে। তাকে স্কুল থেকে বহিষ্কার করা হয়। এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয় তার উপর প্রচন্ড চাপ প্রয়োগ করে। বুয়াবদেললি অনড়। দুই সপ্তাহ পর প্রশাসন তার প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয়। সামাজিক নিরাপত্তা লংঘন ও শুল্কফাঁকির দায়ে ইনভেস্টিগেশন শুরু হয়।

২০০৭ সালের ঘটনা। বুয়াবদেললির মাধ্যমিক স্কুল বন্ধ করে দেওয়ার পরপরই মাঠে আসে লায়লা তারাবলুসি, ওরফে লেয়লা বেন আলি। বেন আলির দ্বিতীয় স্ত্রী। পেশায় ছিল হেয়ারড্রেসার, প্যারিসে পার্টি করে বেড়াত। ১৯৯২ তে বেন আলির সাথে বিয়ের পরপরই ফল বিক্রেতার মেয়ে, স্বল্পশিক্ষিত লেয়লা তিউনিসিয়ার রাজনীতিতে প্রচণ্ড দাপটে আবির্ভূত হয়। বুয়াবদেললিকে মাঠছাড়া করতে লেয়লা এবার রাষ্ট্রীয় জমি সস্তায় কিনে, নামমাত্র মূল্যে অন্যান্য উপকরণ জোগাড় করে কম খরচে নিজের সেকেন্ডারি স্কুল চালু করে।

বুয়াবদেললিকে তার লুই পাস্তুর স্কুল বন্ধ করে দিতে বাধ্য করা হয়। তার প্রতিষ্ঠিত ও পরিচালিত প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় থেকেও বহিষ্কার করা হয়। কদিন বাদে তিনি দেশ ত্যাগ করেন। আমেরিকার স্টেট ডিপার্টমেন্ট, হোয়াইট হাউজ, কংগ্রেস, ইউরোপিয়ান পার্লামেন্ট, সবখানে তিনি তিউনিসিয়ার মানবাধিকার পরিস্থিতি নিয়ে বক্তৃতা প্রদান করেন। ২০১০ সালের এপ্রিলে দেশে ফিরে আসেন। আসার পরপরই আবার পুলিশের জেরার মুখে পড়েন। ডিসেম্বরের চার তারিখে পুলিশ তার বাড়িটি গুড়িয়ে দেয়, কারণ এটির অনুমোদন ছিল না।

তেরদিন পর শুরু হয় তিউনিসিয়ার জেসমিন রেভ্যুলুশন- আরব বসন্তের সূতিকাগার।

গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহুতি দেওয়া ফেরিওয়ালা আবু আজিজ (তিউনিসিয়ান উচ্চারণে বু আজিজি) তো দূর কি বাত, বরং তিউনিসিয়ার বড় বড় ব্যবসায়িরাও নিজেদের ব্যবসা বৃদ্ধি করতে চাইত না। ছোট ছোট বিজনেসগুলো অনেক পুঁজি থাকা সত্ত্বেও ছোটই রাখত। বড় করত না। কারণ একবার লেয়লার নজরে পড়েছে তো শেষ!

বিপুল পরিমাণ চাঁদা দাবি করে চিঠি আসবে। দিতে না পারলে সরকারি জমি, সরকারি পুঁজি ব্যবহার করে লেয়লা পাল্টা প্রতিষ্ঠান খুলবে। কদিন বাদেই শুরু হবে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের হানা। হামলা-মামলায় এমন অবস্থা হবে ব্যবসা তো ব্যবসা, বু আজিজির মত গায়ে আগুন ঢেলে জীবন ‘বাঁচাতে’ হবে।

তিউনিসিয়ায় বিপ্লব শুরু হওয়ার পর দেখা গেল খোদ বেন আলির দলও তার পাশে নেই। কারণ দলের নেতাকর্মিরা সবাই লায়লার দাপটে কোণঠাসা। এমনকি সিনিয়র নেতারাও তার অনুমতি ও এ্যাপয়েন্টমেন্ট ছাড়া প্রেসিডেন্টের সাথে সাক্ষাৎ করার উপায় ছিল না। পরিস্থিতি এতই জটিল ছিল যে বিপ্লব শুরু হওয়ার পর আন্দোলনকারিদেরকে শান্ত করতে সরকার স্বেচ্ছায় যেসব ঘোষণা দিয়েছিল তন্মধ্যে একটি ছিল দেশের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের উপর লায়লার হস্তক্ষেপ বন্ধ করা হবে!!

বেন আলি দেশ ছেড়ে পালিয়ে যাওয়ার পর দীর্ঘদিন পর্যন্ত লায়লার বিলাসিতা, আমোদ-প্রমোদ ছিল টক অব দ্য কান্ট্রি। বর্তমানে ইন্টারপোলের ওয়ারেন্টভুক্ত ফেরারি আসামি। তিউনিসিয়ার আদালত প্রতারণা ও অর্থপাচারের দায়ে তাকে খুঁজছে।


আরব বসন্ত: বিপ্লব থেকে বিদ্রোহ

 

 


প্রিয় পাঠক, ‘দিন রাত্রি’তে লিখতে পারেন আপনিও! লেখা পাঠান এই লিংকে ক্লিক করে- ‘দিনরাত্রি’তে আপনিও লিখুন

লেখাটি শেয়ার করুন 

এই বিভাগের আরো লেখা

Useful Links

Thanks

দিন রাত্রি’তে বিজ্ঞাপন দিন

© All rights reserved 2020 By  DinRatri.net

Theme Customized BY LatestNews